27 C
Dhaka
সোমবার, মে ২৯, ২০২৩

মামুনুলের রিসোর্টকাণ্ড: গ্রেফতার হেফাজত নেতার মৃত্যু

মামুনুল হকের রিসোর্টকাণ্ডের ঘটনায় গ্রেফতারের পর কারাগারে থাকা নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলা হেফাজতে ইসলামের বিলুপ্ত কমিটির সহসভাপতি ইকবাল হোসেন মারা গেছেন। বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

ইকবাল হোসেন পেটের পীড়ায় আক্রান্ত ছিলেন বলে কারা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। তিনি গত ৩ এপ্রিল হেফাজত নেতা মামুনুল হকের রিসোর্টকাণ্ডের ঘটনায় সেখানে হামলা, ভাঙচুর ও মহাসড়কে নাশকতা মামলার প্রধান আসামি ছিলেন।

ইকবাল হোসেনের বাড়ি সোনারগাঁ উপজেলার উদুমগঞ্জ এলাকায়। তিনি হেফাজতে ইসলামের পাশাপাশি মামুনুল হকের দল খেলাফত মজলিসের সোনারগাঁ উপজেলা শাখার সভাপতির দায়িত্বে ছিলেন। তিনি সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স মসজিদের ইমাম ছিলেন।

নারায়ণগঞ্জ কারাগারের জেলার শাহ রফিকুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, ইকবাল হোসেন কারাগারে পেটব্যথায় অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হয়। অবস্থার অবনতি হলে তাকে ঢাকার সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে তিনি মারা যান।

উল্লেখ্য, গত ৩ এপ্রিল স্থানীয় জনতার হাতে হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হক নারীসহ রয়্যাল রিসোর্টে অবরুদ্ধ হওয়ার পর রিসোর্টটিতে ভাঙচুরসহ ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে সহিংসতা, গাড়ি ভাঙচুর, নাশকতা সৃষ্টি ও অগ্নিসংযোগ করে জনমনে ভীতি সঞ্চার করেন হেফাজতকর্মীরা। ওই সময় সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স মসজিদের ইমাম মাওলানা ইকবাল মসজিদের মাইকে উসকানিমূলক বক্তব্য প্রচার করে লোক জমায়েত করে হামলায় নেতৃত্ব দেন বলে জানা গেছে।

এ ঘটনায় পুলিশ চারটি মামলায় ইকবাল হোসেনকে আসামি করে। এর মধ্যে দুটি মামলার তাকে প্রধান আসামি করা হয়। গত ১১ এপ্রিল বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে ঢাকার জুরাইন রেলগেট বাজার মসজিদের সামনে থেকে ইকবাল হোসেনসহ চারজনকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। পরের দিন তাদের পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে আদালতে পাঠানো হয়।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

0FansLike
3,785FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -

Latest Articles